দুর্গাপুরবাসীর জন্য শিল্পশহরে ওলার নতুন সংযোজন “ওলা বাইক”

0
2007

নিউজ ডেস্ক, এই বাংলায়ঃ কোনও দরকারী কাজে কোথাও বেড়িয়েছেন, আচমকা বার কয়েক হ্যাঁচকা দিয়ে মাঝ রাস্তায় দাঁড়িয়ে পড়ল হতচ্ছাড়া বাইক বা সাধের চারচাকা। ওদিকে হয় ক্লায়েন্ট অপেক্ষা করছেন নয়তো দরকারী প্রয়োজনে দ্রুত ডেকে পাঠিয়েছেন অফিসের বস। ব্যস, হয়ে গেল কাজের দফারফা। বসের চিৎকারের জেরে কান ঝালাপালা, পারলে মনে হয় তখনই ওই হতচ্ছাড়া গাড়ির চোদ্দ পুরুষ উদ্ধার করে দিই। ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা থেকে এই প্রতিবেদন লিখলেও দৈনন্দিন জীবনে কোনও না কোনও সময় এরকম পরিস্থিতির সম্মুখীন হননি এমন মানুষের সংখ্যাটাও নেহাত কম নয়। তবে এবার এই সমস্যা থেকে চিরতরে মুক্তি পেতে চলেছেন দুর্গাপুর শহরবাসী। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ক্রমে ব্যস্ত হচ্ছে শিল্পশহর আমাদের দুর্গাপুর, তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে দুর্গাপুরবাসীর ব্যস্ততাও। সকাল হলেই, বাজার-ঘাট, অফিস, স্কুল, কলেজ, ব্যবসা বিভিন্ন কাজের ইঁদুর দৌড়ে সে এক ব্যতিব্যস্ত অবস্থা। তাই দুর্গপুরবাসীর এই কর্মব্যস্ত জীবনের কথা ভেবেই দেশের অন্যতম ক্যাব সার্ভিস সংস্থা ওলা নিয়ে এল “ওলা বাইক”-এর সুবিধা। এতদিন কলকাতা, দিল্লী, মুম্বই প্রভৃতি শহরের মতো দুর্গাপুরে ওলা ক্যাব সংস্থার তরফে শহরের রাস্তায় চারচাকা ক্যাব পরিষেবা চালু করা হয়েছিল, কিন্তু এবার আরও এক ধাপ এগিয়ে এই সংস্থা নিয়ে এল “ওলা বাইক”। কী এই “ওলা বাইক”? এর সুবিধায় বা কী? “ওলা বাইক” হল চালক সমেত দু-চাকা বাইক। যেই বাইকের সঙ্গে থাকবেন একজন প্রশিক্ষিত এবং লাইসেন্সপ্রাপ্ত বাইক চালক। ক্যাবের মতোই আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী ওলা অ্যাপসের মাধ্যমে “ওলা বাইক” অপশনে গিয়ে প্রয়োজন মতো বুকিং করলেই আপনার লোকেশন অনুযায়ী ওলা বাইক চালক মুহূর্তে চলে আসবে আপনার কাছে। এবার আপনার গন্তব্য তাঁকে জানিয়ে দিলেই তৎক্ষনাত সেই বাইক আপনাকে আপনার গন্তব্যে পৌঁছে দেবে। দেশের বড় বড় শহরগুলিতে ইতিমধ্যেই ওলা তাদের বাইকের সুবিধা চালু করে দিলেও এতদিন দুর্গাপুরে এই সংস্থার শুধু ক্যাপ পরিষেবা চালু ছিল। এবার সেই তালিকায় নতুন সংযোজন ওলা বাইক। যার সাহায্যে যেকোনো মানুষ নিজের প্রয়োজনে বা রাত-বিরেতে কোথাও বিপদে পড়লে এই সুবিধা ব্যবহার করতে পারবেন। অনেকক্ষেত্রেই দেখা যায়, পরিবার নিয়ে কোথাও যাওয়ার পথে হঠাত করে গাড়ির তেল শেষ হয়ে গেল অথবা গাড়ি খারাপ হয়ে গেল। সঙ্গে সঙ্গে নিজের স্মার্টফোনের ওলা অ্যাপস থেকে ওলা বাইক ডেকে নিন এক ক্লিকেই, ব্যাস সমস্যার সমাধান। প্রাথমিকভাবে সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, পুরুষ কিংবা মহিলা যাত্রী উভয়ের ক্ষেত্রেই গাড়িতে পুরুষ চালকই থাকবেন, তবে মহিলা যাত্রীদের নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে দ্রুত মহিলা চালক নিয়োগ করা যায় কিনা সেবিষয়েও চিন্তাভাবনা শুরু হয়েছে। এছাড়াও বয়স্কদের জন্য সুদক্ষ চালকও নিয়োগ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে এই সংস্থা। ইতিমধ্যেই দুর্গাপুর শহরে “ওলা বাইক” পরিষেবা চালু হয়ে গিয়েছে। সংস্থার তরফে জানা গেছে কিলোমিটার প্রতি ওলা বাইকের ভাড়া ৫ টাকা করে ধার্য করা হয়েছে। তবে নতুন এই পরিষেবা জনগণের কাছে আকর্ষনীয় করে তুলতে ওলার তরফে প্রত্যেক যাত্রীর প্রথম “ওলা বাইক”-এ চড়ে যাত্রা সম্পূর্ণ বিনামূল্যে দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছে। তাহলে আর দেরি কিসের, দুর্গাপুরের বুকে যেকোনো প্রান্তে নতুন এই “ওলা বাইকে” চড়ে একবার ঢুঁ মেরে নিন।