দীর্ঘ ৭ বছর পর স্বামীর হাত ধরে বাড়ি ফিরলেন স্ত্রী

0
421

সংবাদদাতা, মালদাঃ- দীর্ঘ ৭ বছর পর বাড়ি ফিরে গেলেন সুখিয়া বিবি। আজ মালদার সরকারি হোম থেকে নিজের স্বামীর সাথে বাড়ি ফিরে যান সুখিয়া বিবি। স্ত্রীকে ফিরে পেয়ে আনন্দে আপ্লুত ইসমাইল শেখও। সুখিয়া বিবি মুর্শিদাবাদ জেলার রঘুনাথগঞ্জের পাতলাটোলা গ্রামের বাসিন্দা। সুখিয়া বিবি’র স্বামী ইসমাইল শেখ পেশায় একজন শ্রমিক। তদের দুই ছেলে, তিন মেয়ে। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সুখিয়া বিবি মানসিক ভারসাম্যহীন ছিলেন। প্রায় মাঝেমধ্যেই বাড়ি থেকে হঠাৎ হঠাৎ বেড়িয়ে যেতেন। এই ভাবেই ২০১৫ সালে সুখিয়া বিবি বাড়ি ছেড়ে বেড়িয়ে যান। কিন্তু বহু বছর পেরিয়ে গেলেও তিনি আর বাড়ি ফেরেন নি। এদিকে ২০১৫ সালের মাঝামাঝি মালদার বৈষ্ণবনগর থানার পুলিশ বিভাগ সুখিয়া বিবি কে উদ্দেশ্যহীন ভাবে পথে ঘোরাঘুরি করতে দেখে। এবং সুখিয়া বিবি কে মালদার সরকারি হোমে রেখে দেয়। কিন্তু সেই সময় সুখিয়া বিবি নিজের নাম, পরিচয়, ঠিকানা কিছুই বলতে পারছিলেন না পুলিশ কে। এরপরে সুখিয়া বিবি মানসিক ভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ায় পুলিশ তাকে হোম থেকে মালদা মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করে। অনেক দিন ধরে চিকিৎসা চলার পরেও সুখিয়া বিবি খানিকটা সুস্থ হলেও নিজের পরিচয় সে ভাবে পুলিশ কে দিতে পারছিলেন না। কিন্তু অনেকদিন পরে তার পুরোনো সব কথা মনে পরে। হোম কর্তৃপক্ষ সুখিয়া বিবির পরিচয় বিষয়টি জানতে পেরেই রঘুনাথগঞ্জের নানান স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করে। শেষ পর্যন্ত রঘুনাথগঞ্জের এক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার এক কর্মী সালোয়ার শেখ সুখিয়া বিবি’র স্বামী ইসমাইল শেখের তার স্ত্রীর খবর নিয়ে যান। এরপরে মালদা সদর মহকমাশাসকের সাহায্যে ইসমাইল শেখ তার স্ত্রী সুখিয়া বিবি কে বাড়িতে ফিরিয়ে নিয়ে যান। ইসমাইল জানান, “তার স্ত্রী সুখিয়া বিবি মানসিক ভারসাম্যহীন। মাঝেমধ্যেই সে বাড়ি থেকে উদাও হয়ে যেত। বেশ কয়েক বছর আগে সুখিয়া বিবি বাড়ি থেকে বেড়িয়ে গেছিল তারপর সে আর ফেরেনি”। তাই বহুদিন পর স্ত্রীকে ফিরে পেয়ে ইসমাইল খুব খুশী। এদিকে মালদা জেলা সিডাব্লুউসি চেয়ারপার্সন চৈতালি ঘোষ জানান, সুখিয়া বিবি কে তার নিজের বাড়িতে ফিরিয়ে দিতে পারায় আমাদেরও খুব ভালো লাগছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here