আঁতড়া গ্রামের সরকার পরিবারের ৮০০ বছরের অজানা কালী পুজো

0
736

নিজস্ব প্রতিনিধি, বাঁকুড়া:-

দীর্ঘ ৮০০ বছর ধরে পূর্বপুরুষদের দেখানো পথেই আজও বাঁকুড়া জেলার পাত্রসায়র থানার বীজপুরের সরকার পরিবারের সদস্যরা আঁতড়া গ্রামে মা কালীর পুজো করে আসছেন । মূলত এই সরকার পরিবার জমিদার বংশ হিসেবেই বেশি পরিচিত । জমিদার পরিবারের সকলেই বর্তমানে পাত্রসায়ের বিজপুর গ্রামে থাকেন কিন্তু পুজোর সময় বীজপুর থেকে তিন কিলোমিটার দূরে আত্রা গ্রামে সকল পরিবারের সদস্যরা একত্রে মিলিত হন এবং মা কালীর আরাধনায় সকলে মেতে ওঠেন ।

তবে পূর্বপুরুষেরা কোন উদ্দেশ্য নিয়ে বা কি কারণে এই কালীপুজোর সূচনা করেছিলেন তা বর্তমান জমিদার বংশ অর্থাৎ সরকার পরিবারের সদস্যদের অজানা । কিন্তু পূর্বপুরুষদের সেই রীতিনীতি মেনে আজও তারা মা কালীর পুজো করে আসছেন । এই পূজাকে কেন্দ্র করে শুধুমাত্র সরকার পরিবার নয় আঁতড়া গ্রামের সকল মানুষই মেতে ওঠেন । পুজো কে কেন্দ্র করে রীতিমত মেলার মেলা আকার ধারণ করে । সকলে সারাটা বছর এই পুজোর অপেক্ষায় থাকেন । তবে মায়ের মন্দিরে শুধুমাত্র পুজোর সময় নয় বছরের সারাটা সময়ই ভক্তদের সমাগম থাকে । তবে যে উদ্দেশ্য নিয়েই মা কালীর পুজো সূচনা হোক না কেন ভক্তি নিষ্ঠা নিয়ম-কানুনের কোনরকম খামতি রাখেন না বর্তমান সদস্যরা ।

সরকার পরিবারের এক সদস্য প্রিয়া সরকার বলেন , ৮০০ বছর আগে আমাদের পূর্ব পুরুষরা এই কালীপুজো চালু করেছিলেন । এবং তাদের সেই নিয়ম নীতি মেনেই আজও পূজো হয়ে আসছে । তবে কি কারণে তারা এই পুজোর সূচনা করেছিলেন তা আমাদের সকলের অজানা । আঁতড়া গ্রামের মানুষরাই ঠাকুরের দেখাশোনা করেন । পুজোর কটা দিনই আমরা পরিবারের সকলে এখানে আসি ।

মন্দিরের পুরোহিত অভিজিৎ মুখার্জি বলেন , বংশপরম্পরায় আমরা পুজো করে আসছি । এই পুজোর সূচনা ৮০০ বছর আগে করেছিলেন বিজপুরের সরকার পরিবারের সদস্যরা ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here