আসানসোলে মুখ্যমন্ত্রীর সভা ঘিরে তৎপরতা তুঙ্গে

0
39

সংবাদদাতা, আসানসোলঃ- দু’দিনের পশ্চিম বর্ধমান জেলা সফরে আসছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার মধ্যে আগামী ২৮ জুন আসানসোলে লোকসভা উপনির্বাচনে দলীয় প্রার্থীকে জয়ী করার জন্য আসানসোলবাসীকে ধন্যবাদ জানাতে একটি কর্মিসভা করবেন। তার পরের দিন দুই বর্ধমানকে নিয়ে বৈঠক করবেন । প্রশাসন ও তৃণমূল সূত্রে জানা গিয়েছে, ২৮ জুন আসানসোলের পোলো মাঠে কর্মিসভা ও ২৯ জুন পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমানকে নিয়ে দুর্গাপুরের সৃজনী প্রেক্ষাগৃহে প্রশাসনিক বৈঠক করার কথা রয়েছে তৃণমূল সুপ্রিমোর। আর সে জন্য জেলা প্রশাসন ও জেলা নেতৃত্বের তরফে শুরু হয়ে গেছে প্রস্তুতি।

কর্মিসভার জন্য বৃহস্পতিবার আসানসোলের পোলো মাঠ সহ আরো তিনটি মাঠ ঘুরে দেখেন জেলা শাসক এস অরুন প্রশাদ ও পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম। সাথে ছিলেন প্রশাসনের আধিকারিকরা। এদিন পুলিশ কমিশনার সুধীর কুমার নীলকান্তম বলেন, যে মাঠে সভা করা যাবে এমন চারটি মাঠ পরিদর্শন করা হচ্ছে। পরে কোন মাঠে সভা হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এরপর মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা বিভাগের সঙ্গে বৈঠক হয় জেলা প্রশাসন এবং তৃণমূল নেতৃত্বের।

যদিও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কর্মিসভার জন্য বুধবার বিকেলে আসানসোল পোলো গ্রাউন্ড পরিদর্শন করেন আসানসোলের মেয়র বিধান উপাধ্যায়, চেয়ারম্যান অমরনাথ চট্টোপাধ্যায় এবং দুই ডেপুটি মেয়র অভিজিৎ ঘটক এবং ওয়াসিম উল হক-সহ পৌরকর্তারা ৷ সঙ্গে ছিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের স্থানীয় নেতারা ৷ কোথায় মঞ্চ বাঁধা হবে, কোথায় মানুষজন বসবেন, কীভাবে ত্রিপলের ছাউনি তৈরি করা হবে, সেসবই খতিয়ে দেখেন তাঁরা ৷

মেয়র বিধান উপাধ্যায় জানান, মুখ্যমন্ত্রীর সভাকে সফল করে তুলতে জেলা জুড়ে প্রচার শুরু হয়েছে। আসানসোলের ১০৬টি ওয়ার্ড ও ৮টি ব্লক থেকেই মানুষজন আসবেন। সভাস্থলে ঢোকা ও বেরোনোর রাস্তা বাধামুক্ত রাখতে, প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক করা হবে। চেয়ারম্যান অমরনাথ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় জাতীয় রাজনীতিতেও নেতৃত্ব দিচ্ছেন ৷ তাঁর বক্তব্য শুনতে মানুষের ভিড়ে মাঠ উপচে পড়বে ৷ সকলেই যাতে মুখ্যমন্ত্রীকে চাক্ষুস করতে পারেন এবং তাঁর বক্তৃতা শুনতে পারেন, তা নিশ্চিত করতে চাইছে স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব ৷ সেই মতোই সভাস্থলের ব্যবস্থাপনা করা হচ্ছে ৷”

প্রসঙ্গত বাঁকুড়া ও পুরুলিয়া সফরে যাওয়ার সময় গত ২৯ মে দুর্গাপুরের সার্কিট হাউসে রাত্রিবাস করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেই সময়ই দুই বর্ধমানকে নিয়ে দুর্গাপুরে বৈঠক এবং বর্ধমান ও আসানসোলে কর্মীদের নিয়ে জনসভা করার কথা সংবাদমাধ্যমের কাছে জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। বুধবার নবান্ন সূত্রে জানা গিয়েছে, শেষ পর্যন্ত ঠিক হয়েছে ২৭ থেকে ২৯ জুন তিনি পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান— দুই জেলা সফর করতে পারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here