জেলা জুড়ে কলেজ অস্থায়ী কর্মীদের দাবি আদায়ে অবস্থান-বিক্ষোভ, ১২সেপ্টেম্বর বিকাশ ভবন অভিযানের ঘোষণা

0
802

নিজস্ব সংবাদদাতা,মুর্শিদাবাদ:-অতীতে রাজ্যের শিক্ষা মন্ত্রীর পার্থ চ্যাটার্জির সাথে নিজেদের দাবি দাওয়া নিয়ে দীর্ঘ আলোচনার পরেও কোন সুফল নে মেলায় বাধ্য হয়েই সোমবার টানা মুর্শিদাবাদ জুড়ে কলেজে কর্মরত অস্থায়ী কর্মীরা কর্ম বিরতি ও অবস্থান বিক্ষোভ পালন করলেন।মূলত এদিন পশ্চিমবঙ্গ কলেজ অস্থায়ী কর্মচারী সমিতির ডাকে এই অবস্থান কে ঘিরে কোথাও কোনও অপ্রীতি কর ঘটনা অবশ্য ঘটেনি।কার্যত শান্তিপূর্ণ ভাবেই নিজেদের দাবি দাওয়া নিয়ে অস্থায়ী কর্মীরা এই বিক্ষোভ চালায়।পাশাপাশি এদিন কল্যাণী বিশ্ব বিদ্যালয়ের যে সব কলেজে পরিক্ষা ছিল সেই সব কলেজে পরিক্ষা গ্রহনের কাজও চলেছে নির্বিঘ্নে ।জানা যায়,রাজ্যের প্রতিটি কলেজেই অস্থায়ী অর্থাৎ ক্যাজুয়াল কর্মীরা কেউ ১০ বছর তো কেউ ১৪ বছর ধরে কাজ করে আসছেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত তাদের স্থায়ী করণের বিষয়ে সরকার পক্ষের কোন ভূমিকা নেই বলেই তাদের অভিযোগ।তাই সম কাজে সম বেতন সহ ,নিজেদের কাজের নিরাপত্তার বিষয়টিও সুনিশ্চিত করতে প্রায় ১০দফা দাবি সনদ নিয়ে তারা এই অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করেন।যেখানে তাদের মূল দাবি কলেজে কলেজে কর্মরত অস্থায়ী কর্মচারীদের স্থায়ীকরন,সমকাজে সমবেতন, কর্মরত অস্থায়ী কলেজ কর্মচারীদের অবিলম্বে সরকারী স্বীকৃতি প্রদান,সরকারী অন্যান্য দপ্তরের ন্যায় কলেজে কর্মরত অস্থায়ী কর্মচারীদের স্থায়ীকরনের উদ্যোগ গ্রহণ এছাড়াও ৬০ বছর পর্যন্ত সুনিশ্চিত কর্মসংস্থানের ব্যাবস্থা ইত্যাদি।আর এই সকল দাবি আদায়ে কর্মসূচি মেনে এদিন জেলার লালবাগ, লালগোলা , জিয়াগঞ্জ , লালবাগ ,জঙ্গিপুর , হরিহরপাড়া , বেলডাঙ্গা এবং কান্দির কলেজ গুলিতে সংগঠনের কর্মী সমর্থকরা একজোট অবস্থান বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।এই ব্যাপারে ওই সংগঠনের লালবাগ নেতাজী সুভাষ চন্দ্র বোস সেন্টিনারী কলেজের ইউনিট সভাপতি অরুপ সরকার জানান , “ আমরা ইতিপূর্বে কয়েক মাস আগে শিক্ষা মন্ত্রীর সাথে দেখা করে ছিলাম,কিণ্তু তাতে কোন কাজ হয়নি।তাই আমরা শান্তিপূর্ণ আন্দলন-বিক্ষোভের পথে নেমেছি।এর পরে আগামী ১২ই সেপ্টম্বর আমারা কলকাতা বিকাশ ভবন অভিযান করবো”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here