দোল আর হোলির মধ্যে পার্থক্য আছে, কী সেই পার্থক্য জেনে নিন

0
419

সংগীতা চৌধুরী, বহরমপুরঃ- ২৮ শে মার্চ দোল আর ২৯ শে মার্চ হোলি। দোল আর হোলির মধ্যে কতগুলি বিষয়ে পার্থক্য আছে। সেই পার্থক্যগুলি আজকের প্রতিবেদনে তুলে ধরা হলো।

দোল আর হোলি দুই অশুভ শক্তি ধ্বংস করে শুভশক্তির সূচনার ইঙ্গিত দেয়। তবে এই দুই জিনিসের মধ্যে বিশেষ পার্থক্য আছে।

দোল হলো রাধা কৃষ্ণের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত। অন্যদিকে হোলি হলো নৃসিংহ দেবের অবতারের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত।

শাস্ত্রে বলা হয় যে দোলের দিনে রাধারানী সখীসহ দোল খেলায় মত্ত হয়ে ওঠেন। দোলের দিন প্রথম শ্রীকৃষ্ণ রাধাকে প্রেম নিবেদন করেছিলেন। এইদিন সুগন্ধি ফুলের কুঁড়ির রং শ্রীকৃষ্ণ রাধারাণীর মুখে মাখিয়ে দিয়েছিলেন।

অন্যদিকে হিরণ্যকশিপুর সন্তান হয়ে দৈত্যকুলের মধ্যেই জন্ম হয়েছিল পরম বিষ্ণু ভক্ত প্রহ্লাদ মহারাজের। তিনি বিষ্ণুভক্ত একথা জানার পরে হিরণ্যকশিপু তাকে মারার চেষ্টা করেন। হিরণ্যকশিপুর বোন হোলিকা নিজে উদ্যোগ নিয়ে প্রহ্লাদ মহারাজকে আগুনের মধ্যে ঠেলে দেন। বিষ্ণু তার ভক্ত প্রহ্লাদকে রক্ষা করেন কিন্তু আগুন এর মধ্যে পুড়ে ছাই হয়ে যায় হোলিকা। সেই থেকেই শুরু হয় হোলি উৎসব। এই দুই উৎসবই শুভশক্তির সূচনাস্বরূপ। তাই এই দুই দিন ভগবান বিষ্ণুর আরাধনা করলে তা বিশেষ ফলপ্রদ হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here