দুর্গাপুরে রহস্যজনকভাবে ১২ লক্ষ টাকাসহ উধাও হোটেল ব্যাবসায়ী, উদ্ধার পরিত্যক্ত গাড়ি

0
3069

নিউজ ডেস্ক, এই বাংলায়ঃ ফের খবরের শিরোনামে দুর্গাপুর। কয়েক লক্ষ টাকা সমেত রহস্যজনকভাবে নিখোঁজ হয়ে গেলেন এক হোটেল ব্যবসায়ী। পরিত্যক্ত অবস্থায় রাস্তার ধার থেকে উদ্ধার হল তার চার চাকা গাড়ি। ঘটনার সূত্রপাত গত ২২শে আগস্ট। দুর্গাপুরের কবিগুরু এলাকার বাসিন্দা শরাফত আলী পেশায় হোটেল ব্যবসায়ী। জানা গেছে, কিছুদিন আগে স্থানীয় এক মহিলার কাছ থেকে দুটি চারচাকা গাড়ি লিজে নিয়েছিলেন ওই ব্যবসায়ী। পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গত ২২শে আগস্ট লিজ নেওয়া একটি চারচাকা সাদা গাড়ি ও ১২ লক্ষ টাকা নিয়ে বেড়িয়ে যান শরাফত আলী। তাদের বক্তব্য, রাত ১১টার পর থেকে তাকে আর ফোনে পাওয়া যায়নি। ৩ দিন পেরিয়ে গেলেও কোনও খোঁজও পাওয়া যায়নি তার। রবিবার সকালে দুর্গাপুরের চতুরঙ্গ ময়দানের সামনে থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় নিখোঁজ ওই ব্যবসায়ীর গাড়িটি উদ্ধার হওয়ায় সেই রহস্য আরও ঘনীভূত হয়েছে। এদিন সকালে পরিত্যক্ত অবস্থায় গাড়িটি উদ্ধার হওয়ার পর সিটি সেন্টার ফাঁড়ির পুলিশকে খবর দেওয়া হলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গাড়ি পরীক্ষা করে দেখে গাড়ির ভেতরে একটি চটি ও কিছু কাগজ ছড়িয়ে আছে। কিন্তু নিখোঁজ ওই ব্যবসায়ী গায়েব। এরপর পরিবারের সদস্যদের বিষয়টি জানালে তারা ঘটনাস্থলে পৌঁছান। শরাফত আলীর ভাই বাপি সেখ জানান, দাদার বাঁকুড়ায় হোটেল ব্যবসা ছিল। নিখোঁজ হওয়ার দিন রাতে ১২ লক্ষ টাকা নিয়ে দাদা বেড়িয়েছিল। তাদের সন্দেহ টাকার জন্য কেউ বা কারা তাকে অপহরণ করেছে। অন্যদিকে লিজ দেওয়া ওই গাড়ির মালিক অপর্না দেবী জানান, দুটি গাড়ী লিজে নিয়েছিলেন ওই ব্যবসায়ী। যার একটি তিনি কিছুদিন আগে ফেরত দিয়েছিলেন। এই গাড়িটি সামনের মাসে ফেরত দেওয়ার কথা ছিল। ঘটনার পর পুলিশ গাড়িটিকে বাজেয়াপ্ত করেছে। নিখোঁজ ওই ব্যবসায়ীর খোঁজে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here