বাঁকুড়ায় সবজির দাম বাড়ায় সমস্যায় ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়ে

0
320

সংবাদদাতা, বাঁকুড়াঃ- করোনা অবহের মধ্যে দাম বেড়েছে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রীর ফলে সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে আমজনতাকে। এই মুহূর্তে সবজির দাম আকাশছোঁয়া যার ফলে ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়কে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। শনিবার আমাদের ক্যামেরা ঘুরে দেখল সোনামুখীর বিভিন্ন এলাকা। যেখানে দেখা যাচ্ছে সবজির দোকানে অন্যান্য দিনের তুলনায় সাধারণ ক্রেতা অনেকটাই কম। সবজির দাম বাড়ায় সাধারণ মানুষ সবজি কম কিনছেন। এই মুহূর্তে সবজির দাম কেজিপ্রতি বেগুন ৪০ টাকা ,করোলা ৫০ থেকে ৬০ টাকা, ঘি করোলা ৩০ থেকে ৪০ টাকা, পটল ৪০ টাকা, আলু ৩০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। স্বাভাবিকভাবেই নিম্নমধ্যবিত্ত এবং মধ্যবিত্তের পকেটে টান পড়েছে। রতন দাস নামে এক সবজি বিক্রেতা বলেন, দাম বাড়ায় দোকানে খরিদ্দার কম আসছেন এবং আগে যারা এ কেজি বেগুন পটল কিনতেন এখন তারা ৫০০ কিনছেন এর ফলে আমাদেরকেউ আর্থিক সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। সাধন মন্ডল নামে এক সবজি ক্রেতা আবার সবজির দাম বাড়ার জন্য দায়ী করেছেন অত্যধিক বৃষ্টিকে। তিনি বলেন এবছর অত্যাধিক বৃষ্টির ফলে সবজি নষ্ট হচ্ছে সে কারণে সবজির দাম বেড়েছে। এর পাশাপাশি পেট্রোল ডিজেলের দাম বাড়াতে সবজির দাম বেড়েছে বলে তিনি মনে করেন। আর এর ফলে তাদের যে সংসার চালাতে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে তাও তিনি স্বীকার করে নেন। তবে প্রশাসনিক নজরদারি রয়েছে যাতে করে কোথাও নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী নিয়ে কালোবাজারে না হয়। ইতিমধ্যেই সোনামুখী পৌরসভা সোনামুখীর চেম্বার অব কমার্সের উদ্যোগে সোনামুখীর বিভিন্ন বাজারগুলিতে বিভিন্ন সময়ে অভিযান চালানো হয়েছে কালোবাজারি বন্ধ করার জন্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here