কাজ না পেয়ে সোনামুখীর পরিযায়ী শ্রমিকরা ফের পাড়ি দিচ্ছেন ভিন রাজ্যে

0
363

সংবাদদাতা, বাঁকুড়াঃ- দীর্ঘ ছয় সাত মাস বাড়িতে কাটানোর পর আর্থিক সংকটে পড়ে পুনরায় ভিন রাজ্যে পাড়ি দিচ্ছে পরিযায়ী শ্রমিকরা। শনিবার এমনই ছবি ধরা পড়ল আমাদের ক্যামেরায় সোনামুখী থানার রাধামোহন পুর পঞ্চায়েতের নিত্যানন্দপুর গ্রামে।

করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধের জন্য দেশজুড়ে লকডাউন ঘোষণা হয়েছিল কেন্দ্র সরকার এবং বিভিন্ন রাজ্যের পাশাপাশি এ রাজ্যের বাঁকুড়া জেলার সোনামুখী থানা এলাকার পরিযায়ী শ্রমিকরা রাজ্য সরকারের সহযোগিতায় বাড়িতে ফিরতে পারলেও দীর্ঘ ছয় সাত মাস তারা বাড়িতে কাজ হারিয়ে বসে ছিলেন। ফলে সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছিল তাদের। তাই বাধ্য হয়ে পুনরায় তারা সেকেন্দ্রাবাদে কাজে যাওয়ার জন্য রওনা দিয়েছেন একটি বাসে করে। নিত্যানন্দপুর গ্রাম থেকে ১৫ জন পরিযায়ী শ্রমিক সেকেন্দ্রাবাদে কাজের জন্য রওনা দিলেন।

অরূপ দাস মহাদেব দাস নামের দুই পরিযায়ী শ্রমিক বলেন, দীর্ঘ ছয় সাত মাস কাজ না পেয়ে আমরা বাড়িতে বসে রয়েছি রাজ্যে কোন কাজ নেই তার ওপর সরকার আমাদেরকে কোন রকম ভাবে আর্থিক সহযোগিতা করেনি ফলে সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে তাই বাধ্য হয়ে আমরা আবারও ভিন রাজ্যে কাজে যাচ্ছি।

এ বিষয়ে সোনামুখী ব্লকের পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি প্রণব রায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পরিযায়ী শ্রমিকদের রাজ্য সরকার ১০০ দিনের কাজ এবং সবদিক থেকেই আর্থিকভাবে তাদের সহযোগিতা করেছে। তবে সেকেন্দ্রাবাদে পরিযায়ী শ্রমিকরা কাজে যাচ্ছেন এরকম খবর আমাদের কাছে নেই। আগামী দিনেও পরিযায়ী শ্রমিক দের পাশে থাকার আশ্বাস দেন তিনি।

বিষ্ণুপুর সাংগঠনিক জেলার বিজেপির তপশিলি মোর্চার সভাপতি দিবাকর ঘরামী পরিযায়ী শ্রমিকদের বাইরে কাজে যাওয়ার জন্য দায়ী করেছেন শাসক দলকে। তিনি বলেন, সরকার পরিযায়ী শ্রমিক দের মাথাপিছু দশ কেজি করে চাল বরাদ্দ করলেও সেখান থেকে দুর্নীতি করছে শাসকদল। যার কারণে সংসার চালাতে বাধ্য হয়েই তারা ভিন রাজ্যে পাড়ি দিচ্ছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here