সদ্যোজাত পুত্র সন্তানকে ২.৫০ লক্ষ টাকায় বিক্রি বাবা

0
503

সংবাদদাতা, দক্ষিন ২৪ পরগনাঃ- সদ্যোজাত পুত্র সন্তানকে বিক্রি করার অভিযোগে গ্রেপার হলেন বাবা। এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিন ২৪ পরগনার সোনারপুরের নতুন পল্লী এলাকায়। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে স্ত্রীর বাঁধা দেওয়া সত্বেও তাঁর স্বামী নিজেরই সদ্যোজাত পুত্র সন্তানকে ২ লক্ষ টাকায় বিক্রি করেছেন। সোনারপুরের নতুন পল্লী এলাকার বাসিন্দা টমাস মণ্ডল ও তাঁর স্ত্রী ঝুমা মণ্ডল ওই এলাকায় দীর্ঘদিন যাবৎ বসবাস করছেন। ১২ দিন আগে গৃহবধূ ঝুমা মণ্ডল একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। জানা গেছে, যে হাসপাতালে তাঁর সন্তানের জন্ম হয় সেখানে এক অজ্ঞাত ব্যক্তির সাথে টমাসের সাক্ষাৎ হয়। হাসপাতালে দুই জন পরিকল্পনা করে টমাস তাঁর নিজের সন্তানের বিক্রির প্রস্তাব দেয় ওই ব্যক্তিকে। কিছুদিন পর সুযোগ বুঝে টমাস তাঁর নিজের সন্তানকে ২ লক্ষ টাকার বিনিময়ে ওই অজ্ঞাত ব্যক্তির হাতে তুলে দেয়। ব্যাপারটি জানতে পেরে টমাসের স্ত্রী ঝুমা দেবী বারন করলেও টমাস স্ত্রীর কোনো কথাই শোনেন নি। উপরন্তু টমাস তাঁর স্ত্রীকে বেপোরোয়া মারধোর করে ও পরে খুনের হুমকিও দেয় বলে জানা গেছে। প্রতিবেশীরা ব্যাপারটি জানতে পেরেই দেরী না করে টমাসের বিরুদ্ধে সোনারপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। সোনারপুর পুলিশ ইতিমধ্যেই টমাসকে নিজেদের হেপাজতে নিয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করাও হচ্ছে। ঝুমা দেবীর বক্তব্য, সন্তানকে বিক্রি করার চেষ্টা আগের থেকেই বুঝেছিলাম। কিন্তু জোর করে টমাস নিজের ছেলেকে বিক্রি করে দিল অন্যের হাতে শুধুমাত্র টাকার লোভে। আটকাতে গেছিলাম কিন্তু সে আমাকে ব্যাপক মারধর করলো, খুনের হুমকি ও দিল। পুত্র হারানোর শোকে ভেঙে পড়েছেন ঝুমা দেবী। পুলিশের দাবি আমরা খুব শীঘ্রই শিশুটিকে উদ্ধারের চেষ্টা করছি। এর পিছনে কাদের হাত আছে তাদেরও তল্লাশি করছে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here