গর্ভবতীর মৃত্যু ঘিরে সন্ধ্যায় ধুন্ধুমার শহর, এলাকায় পুলিশ পিকেট

0
1304

সংবাদদাতা, মুর্শিদাবাদ:-


সন্ধ্যায় রঘুনাথগঞ্জ থানার বাসস্ট্যান্ড লাগোয়া আশাদীপ নার্সিংহোমে রেশমি বিবি(৩৫) নামে গর্ভবতী মহিলার মৃত্যু কে ঘিরে তুলকালাম বেঁধে গিয়ে রণক্ষেত্রে পরিনত হয় শহরের ওই ব্যাস্ততম এলাকা।পরিস্থিতি সামাল দিতে তড়িঘড়ি বিশাল পুলিশ বাহিনী নিয়ে ছুটে আসে রঘুনাথগঞ্জ থানার পুলিশ।মৃতদেহ ফেলে রেখে নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে অবস্থান বিক্ষোভে নেমে মৃতার বাড়ীর লোক।বেগতিক দেখে বেসরকারি ওই নার্সিং হোমের ডাক্তার ও কর্তৃপক্ষ পিঠটান দেয়।জানা যায়,মৃতার বাড়ি লালগোলা থানার দেওয়ানসারা এলাকায়।জানা যায় বুধবারদিন প্রসব যন্ত্রনায় তাকে আশাদীপ নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়।

জঙ্গিপুর মহাকুমা হসপিটাল এর স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ ডক্টর চয়ন মাঝি তার চিকিৎসা করছিল। রঘুনাথগঞ্জ আশাদীপ নার্সিংহোমে ডাক্তার জানায় গর্ভের শিশুর অবস্থা আশঙ্কাজনক।এদিন মহিলার অপারেশন করা হয়। শিশুটি মৃত অবস্থায় জন্মগ্রহণ করে। পরবর্তীতে মায়ের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় বহরমপুর মেডিকেল হসপিটালে স্থানান্তরিত করে। সন্ধ্যার সময় বাড়ির লোক তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাবার পথে রোগী মারা যায়। অভিযোগ, ডাক্তার রক্তের কোন কোনরকম রিপোর্ট না নিয়েই অপারেশন করে।

যার ফলে রেশমি বিবির অবস্থা খারাপ হওয়ায় সে মারা যায়। রঘুনাথগঞ্জ থানার সেখদিঘী কাছাকাছি এলাকায় রাস্তায় মহিলাটি মারা যায়।সেখান থেকেই বাড়ির লোকজন মৃতদেহ নিয়ে আশাদীপ নার্সিংহোমে এসে বিক্ষোভ দেখালে তামূল গোলযোগ বাধে।এই ব্যাপারে নার্সিং হোম কর্তিপক্ষের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা কোন প্রতিক্রিয়া দেয়নি।ঘটনাস্থলে পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here