পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় রাজ্যে মৃত ২, আহত একাধিক

0
758

নিউজ ডেস্ক, এই বাংলায়ঃ ফের রাজ্য সড়ক দুর্ঘটনার বলি পথচারী। মারুতি ভ্যানের ধাক্কায় মৃত্যু হল এক বৃদ্ধের। ঘটনা বাঁকুড়ার পাত্রসায়র থানার পূর্ব নলডাঙ্গা এলাকার। মৃত ব্যাক্তির নাম শেখ গোলাম, বয়স ৬৬ বছর। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার রসুলপুর বাজার থেকে বাজার সেরে সাইকেলে করে পূর্ব নলডাঙ্গা গ্রামে ফিরছিলেন ওই বৃদ্ধ। সেই সময় গ্রামে ঢোকার আগে একটি মারুতি ভ্যান তাকে পিছন দিক থেকে ধাক্কা মারলে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় ঐ বৃদ্ধার। দুর্ঘটনার জেরে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায়। উত্তেজিত জনতা পথ অবরোধ করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পাত্রসায়র থানার পুলিশবাহিনী। পুলিশ গিয়ে বিক্ষোভকারীদের সরিয়ে যান চলাচল স্বাভাবিক করে। ঘাতক গাড়ির চালকের খোজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, ওই এলাকায় প্রত্যেকদিন পুলিশের গাড়ি দাঁড়িয়ে বাইক আরোহীদের কাছে থেকে এবং চার চাকা গাড়ি দাঁড় করিয়ে ফাইন আদায় করা হয়, ফলে বেশিরভাগ গাড়ি পুলিশের নজর এড়িয়ে দ্রুত গতিতে পালাতে গিয়ে এই ধরনের দুর্ঘটনা ঘটাচ্ছে। অন্যদিকে রাস্তার দারে অবৈধভাবে বালি ফেলে রাখায় অটো এবং ইঞ্জিন ভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত হল এক ৬ বছরের শিশুর ঘটনায় আহত ৭। মর্মান্তিক দুর্ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বাসন্তীতে। জানা গেছে, মঙ্গলবার যাত্রী নিয়ে একটি অটো দক্ষিণ ২৪ পরগনার গদখালী থেকে বাসন্তীর দিকে আসছিল, সেইসময় বিপরীত দিক থেকে একটি টোটো একই রাস্তায় আসার সময় রাস্তার পাশে এক জায়গায় অবৈধভাবে বালি বোঝাই করে রাখা থাকায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে দুটি গাড়ি পাশ কাটাতে গিয়ে মুখোমুখি সংঘর্ষ ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় যাত্রীদের উদ্ধার করেন স্থানীয় মানুষজন। স্থানীয় বাসন্তী গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে সেখানে চিকিৎসক এক ছয় বছরের শিশুকে মৃত বলে ঘোষণা করে। তার নাম অয়ন্তিকা নস্কর(৬), আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের অন্যত্র স্থানান্তরিত করা হয়েছে।