ভাইপোর সাথে কাকিমার অবৈধ সম্পর্কের জেরে কাকা খেলো শাবল

0
1995

নিউজ ডেস্ক, এই বাংলায়ঃ ফের অবৈধ সম্পর্কের জের। এবার সম্পর্কের কথা জানাজানি হয়ে যাওয়ায় দাদাকে শাবল দিয়ে মারার অভিযোগ উঠল ভাইয়ের বিরুদ্ধে। ঘটনা দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং থানা এলাকার। ঘটনাসূত্রে জানা গেছে, ক্যানিং থানা এলাকার গোবরামারী গ্রামের বাসিন্দা লক্ষ্মন সর্দারের সঙ্গে অবৈধ সম্পর্ক তৈরী হয় মেজো ভাই নিরঞ্জন সর্দারের স্ত্রীর। কিন্তু ঘটনার নিরঞ্জনের কাছে পৌঁছালে শুরু হয় অশান্তি। গ্রামে সালিশি সভা ডাকা হলে লক্ষ্মন সর্দারের অবৈধ সম্পর্কের মাশুল হিসেবে ২০ হাজার টাকা দাবি করে নিরঞ্জন সর্দার। সালিশি সভার কথা মতো লক্ষ্মন সর্দার ২০ হাজার টাকা দিয়ে দেয়, কিন্তু অভিযোগ, দাবি মতো টাকা মিটিয়ে দেওয়ার পর ফের তার কাছ থেকে আরও টাকা দাবি করে নিরঞ্জন, সেই টাকা দিতে অস্বীকার করায় রবিবার নিরঞ্জন সর্দার লক্ষণ সর্দারের ওপর চড়াও হয়। শাবল দিয়ে তাকে এলোপাথাড়ি মারতে শুরু করে। শাবলের আঘাতে গুরুতর আহত অবস্থায় লুটিয়ে পড়ে লক্ষ্মন। রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে দ্রুত ক্যানিং মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করে তার পরিবারের লোকেরা। বর্তমানে ক্যানিং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সে। মারধরের বিষয়ে ক্যানিং থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে আহতের পরিবার। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। অভিযুক্ত নিরঞ্জন সর্দারের খোঁজে তদন্ত শুরু হয়েছে।