তান্ত্রিকের হাতে খুন নাবালক পশ্চিম মেদিনীপুরে

0
597

সংবাদদাতা, পশ্চিম মেদিনীপুরঃ- কুসংস্কারের বলি এক নাবালক। পশ্চিমবঙ্গে শিক্ষিত মানুষের বাস হলো এখনো পর্যন্ত কুসংস্কারে আচ্ছন্ন রয়েছে আমাদের সমাজ তারই এক উজ্জ্বল উদাহরণ পশ্চিম মেদিনীপুরের খড়গপুর লোকাল থানা এলাকায় । গতকাল রাত থেকে নিখোঁজ ছিল নাবালক রুদ্র নায়েক(৭)। রুদ্র নায়েকের পরিবারের সদস্যদের অভিযোগ বিকেল থেকে নিখোঁজ ছিল রুদ্র। বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজির পরে রুদ্রের মা-বাবা বাড়ির পাশে স্বপন নায়েকের বাড়ি যান। কারন স্বপ্নের নাবালক ছেলে রতন নায়েক তন্ত্র সাধনা করে , তাই সেই ছেলের কাছে রুদ্রের মা বাবা জানতে চান তাদের ছেলে কোথায় গিয়েছে। কিছুক্ষণ পরে ওই ছেলেটির উপর ঠাকুর ভর করার ভান করে এবং ছেলেটি জানাই দুজন ব্যক্তি তাদের ছেলেকে নিয়ে অনেক দূরে চলে গেছে। রুদ্রের মা-বাবা তাদের ছেলেকে ফেরত নিয়ে আসার অনুরোধ করেন তার কাছে না হলে তারা পুলিশে কে জানাবে। পুলিশের নামে ভয় দেখানোর পর ছেলেটি জানাই রুদ্র এখানেই আছে একথা বলার পর পাশের ঘর থেকে রক্তাক্ত রুদ্র নায়েক(৭) দেহ উদ্ধার হয়। রক্তাক্ত অবস্থায় রুদ্রকে খড়্গপুর মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। এই খবর আসা মাত্রই উত্তেজিত গ্রামবাসীরা রতনের বাড়িতে চড়াও হয়।পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে অভিযুক্ত রতন নায়েক কে নিয়ে বেরোবার সময় পুলিশ ঘিরে গ্রামবাসীরা ব্যাপক বিক্ষোভ দেখায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে করতে হিমশিম খেতে হয় পুলিশ কে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে গোটা খড়্গপুর মহকুমা জুড়ে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here