ঘূর্ণিঝড় যশের প্রভাবে রাজ্যে কোথায় কবে বৃষ্টি হবে জেনে নিনি

0
508

এই বাংলায় ওয়েব ডেস্কঃ- সোমবার বঙ্গোপসাগরে তৈরি গভীর নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। বুধবার সেই ঘূর্ণিঝড় স্থলভাগে আছড়ে পড়বে। এর মধ্যেই আজ সকাল থেকে বৃষ্টি শুরু হয়েছে কলকাতায়। এ ছাড়াও দক্ষিণবঙ্গের আরও ৭ জেলায় ঝড়-বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর হাওয়া অফিস। হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস সোমবার কলকাতার পাশাপাশি উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হুগলি, নদিয়া, পূর্ব বর্ধমান, হাওড়া ও পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় কিছু জায়গায় বজ্রবিদ্যুৎ-সহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। তবে ঘূর্ণিঝড় নয়,দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় স্থানীয় নিম্নচাপ তৈরি হওয়ায় বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছে হাওয়া অফিস। তবে মঙ্গলবার থেকে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে উপকূলের তিন জেলা ছাড়াও কলকাতা, হাওড়া, হুগলি, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর, বাঁকুড়া এবং পুরুলিয়াতে। গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের প্রায় সব জেলাতেই হালকা ঝড়-বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। ২৬ মে বুধবার প্রবল বৃষ্টির সম্ভাবনা পূর্ব মেদিনীপুর, পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম ,উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি এবং কলকাতাতে। ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হবে বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান, পুরুলিয়া, বীরভূম, নদিয়াতে।

এদিন বৃষ্টির সঙ্গে দমকা ঝোড়ো হাওয়া বইবে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের জেলাগুলিতে। ১২০ থেকে ১৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টায় ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে উত্তর ২৪ পরগনার উপকূল এলাকা এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনা ও পূর্ব মেদিনীপুরে। ঘণ্টায় ১০০ থেকে ১২০ কিলোমিটার দমকা ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে কলকাতা, হাওড়া, হুগলি এবং উত্তর ২৪ পরগনার উপরের অংশে। ৮০ থেকে ১০০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টায় ঝোড়ো হাওয়া বইবে ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর, পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান, নদিয়া, বাঁকুড়া এবং পুরুলিয়াতে। পূর্ব মেদিনীপুর, দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলায় সবথেকে বেশি ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা। বুধবার থেকে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতেও বৃষ্টি শুরু হবে। উত্তরবঙ্গ, সিকিম ও উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলিতেও বুধ ও বৃহস্পতিবার ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here